1. zobairahmed461@gmail.com : Zobair : Zobair Ahammad
  2. Jalalhossen555@gmail.com : Jalal Hossen : Jalal Hossen
  3. khorshed.eco@gmail.com : Khorshed Alom : Khorshed Alom
  4. hossaintnt@live.com : Shah Sumon : Shah Sumon
মঙ্গলবার, ২৭ জুলাই ২০২১, ০৭:৩৮ অপরাহ্ন

আইন পড়ার কারণ – আইন ০১

জিসান তাসফিক 
  • আপডেট সময়: শনিবার, ২২ আগস্ট, ২০২০
  • ২৬১ বার পড়া হয়েছে 
Law
Law Maker
আমরা আইন পড়ি কেন এর উত্তর জানতে হলে প্রথমে জানতে হবে আইন  কি?
মানব সভ্যতায় আইনের উৎপত্তি?  সমাজব্যবস্থায় আইনের ব্যবহার : তবে আসুন নিচের কথাগুলো খেয়াল করি :
আইন : সমাজে প্রচলিত নিয়মকানুন যা আমরা মেনে চলি  অন্যথায় শাস্তি পাই তাই আইন । উদাহরণস্বরূপ : কারও ক্ষতি করা যাবে না। কিন্তু এইটুকুই কি আইন? এতে আইন কি সহজে বোঝা যায়? আমরা আইন বিশেষজ্ঞের মতামত দেখি :-  আইনবিদ জন অষ্টিনের মতে ” sovereignty’s command is law ” অর্থাৎ সার্বভৌম আদেশই আইন। ( উইকিপিডিয়া )
অর্থাৎ ক্ষমতাসীনরা যা নিয়মকানুন করে জারি করে তা জনগণ পালন করতে বাধ্য, তাই আইন। এভাবেই আইনকে চেনা হয় কিন্তু আসলে আইনের নির্দিষ্ট কোনো সংজ্ঞা নেই এবং সংজ্ঞায়িত করা ও সম্ভব না এর কারণ হল আইনের ব্যাপকতা অনেক এবং আইন সময়ের সাথে, স্থানের সাথে, সমাজের সাথে সর্বদাই পরিবর্তনশীল।
এবার আসুন মানবসভ্যতায় আইনের উৎপত্তি  জেনে আসি : আইনের উৎপত্তি নিয়ে বিভিন্ন মতভেদ আছে। আপনি য‍দি পৃথিবীর প্রাচীন ইতিহাস দেখেন যেখানে  গ্রিক সাম্রাজ্যের  কিংবা রোম সাম্রাজ্য তবে সেখানে ও শাষকদের বিভিন্ন নিয়মকানুন দেখতে পারবেন। আবার যদি ধর্মশাস্ত্র খেয়াল করেন তবে তাতে দেখবেন সুপ্রাচীনকাল থেকে আইনশাস্ত্র এসেছে।
যেমন বৌদ্ধ ধর্মে গৌতম বৌদ্ধের নিয়ম আবার সনাতন ধর্মের তথা হিন্দু ধর্মের দেবদেবীর নিয়মকানুন উল্লেখ আছে যেমন বেদশাস্ত্র  আবার যদি ইসলাম ধর্ম খেয়াল করেন তবে দেখবেন আদি পিতা আদম (আঃ) ও হাওয়া (আ:) এর থেকে সময় থেকে মানবজাতির উৎপত্তি এবং  নিয়মকানুন তথা আইন শুরু হয়েছে। কুরআন ও হাদীস এসে তার পরিপূর্ণতা দিয়েছে।
আমি মনে করি পৃথিবীতে মানবসভ্যতার সৃষ্টির সাথে সাথে আইনের সৃষ্টি হয়েছে।  তবে আমাদের উপমহাদেশের ক্ষেত্রে সম্রাট বিন্দুসারের ( মৌর্য বংশ ) শাসনব্যবস্থা থেকে উন্নত শাসনব্যবস্থার উল্লেখ জানা যায়। উইকিপিডিয়াতে অথবা মৌর্য বংশের ইতিহাস দেখতে পারেন।  ইংরেজে শাসনের পর দেখে আমাদের দেশের তথা উপমহাদেশের উন্নত শাষন ব্যবস্থা হয় যা এখনো বর্তমান আছে।
এখন আমরা জেনে নেই যে সমাজে আইনের ব্যবহার :  এই জিনিসটা বুঝতে পারলে আমরা এটাও বুঝতে পারব যে আমরা আইন পড়ি কেন?
আইন আজ থেকে না। হাজার হাজার বছর পুরোনোকালের শাস্ত্র। পৃথিবীতে যখন মানুষ ছিল না কিন্তু আইন ছিল কারণ প্রকৃতি নির্দিষ্ট নিয়মে চলে। মানবসভ্যতা আসে এবং মানুষের সাথে মানুষকে যাতে কোনো প্রকার সমস্যা না হয় সে জন্যে সমাজে প্রচলিত কিছু নিয়মকানুন তৈরী করা হয় এবং সবাই এটা মেনে চলে, অমান্য যে করে সে শাস্তি পায়।
সমাজে আমাদের মধ্যে আইনে না থাকলে আমার ঠিকমত চলাফেরা করতে পারতাম না , সমাজে বিশৃঙ্খলা হত। উদাহরণস্বরূপ হল সমাজে কোনো কিছু আদান-প্রদানের মানদন্ড অর্থ এবং এটা নির্ধারিত করা থাকে। চালের কেজি পঞ্চাশ টাকা। সমাজের সবাই এটা মেনে চলে। এখন য‍দি এই নিয়ম না হত তবে আমরা কিভাবে কি দরে কিনব জানতাম না, যার ফলে সবাই যে যার মত বিক্রি করত। সমাজের ভারসাম্য নষ্ট হত। এই জন্য সমাজে নিয়মকানুন করে দেওয়া হয় যা আইন। এখন এই নিয়মকানুন তো এমনি এমনি হয় না। এর জন্য গবেষণার প্রয়োজন আছে আর সেই সাথে চর্চারও। এই জন্যই পৃথিবীর প্রত্যেক দেশে আইন পাঠদান করা হয় । আইনশাস্ত্র অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি শাস্ত্র।  প্রত্যেক দেশে নাগরিকদের উচিত প্রচলিত আইন জানা ও সেই অনুযায়ী চলাফেরা করা। এর জন্য সহজ উপায় হল আইনের সাথে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তির সাথে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক রাখা।
লেখক
জিসান তাসফিক
আইন অনার্স, বাউবি।

লেখাটি শেয়ার করুন 

আপনার মতামত লেখুনঃ

এই ক্যাটাগরির আরো খবর 
© All rights reserved © 2020 ChandinaOnlineExplorer.com
Theme Customized BY LatestNews